কুতর্কের দোকান

বিরোধিতা কীসের ও কেন কোরবানি ভালো

যারা পশুহত্যা বিরোধী তারা বৃহৎ অর্থে খাদ্যচক্র নাশের পক্ষে, তাই তারা জীবচক্রবিরোধী, অর্থাৎ শয়তান।

চরিত্র লইয়া আলাপ চলবে, তবে

অর্থাৎ, ব্যক্তি আক্রমণে আমি খুব আছি। আমার এইটা পছন্দ।

কেন কলকাতার বাংলা হইতে ঢাকার বাংলা আগাইন্না

সব ভাষা বা ভাষার সব ধরনই এক—এ রকম চিন্তা ছাগলদের। ইংরাজি ভাষা অন্য সব ভাষার চাইতে উপরে। কেন উপরে? যেহেতু সব ভাষা এক না। ভাষা অস্ত্র, ভাষা কৌশল। অর্থাৎ ভাষা ও ভাষার ধরন মাত্রই একই মর্যাদা বা মাপে অবস্থান করে… Continue Reading →

এনজিও ও অ্যাকটিভিজম

এরা ঠিক করে কোনটা ভাল, এবং কোন ভালোটা আপনার জন্যে ভাল।

কাজের লোক ও খাওয়ার টেবিল

কাজের লোককে একই টেবিলে খাইতে বসান? আপনিও বর্ণবাদী।

নিজেরে বুদ্ধিজীবী বলতে দ্বিধা কেন আপনার

কিন্তু বুদ্ধিজীবী হওয়া যাবে না আপনার! কারণ ওইটা শুধু গুটিকয় ভাবগম্ভীররাই হবেন!! তাদের কোটা ওইটা।

আহমদ ছফার ভাতিজা নূরুল আনোয়ারের মিথ্যাচার ও আমার উত্তর

সম্প্রতি ছফা ভাইয়ের ভাতিজা নূরুল আনোয়ার আমার ছফা বিষয়ক বিবিধ সমালোচনাকে বেশ্যাবৃত্তি ও ধান্ধাবাজির সঙ্গে তুলনা করছেন।

প্রমিত, অপ্রমিত, ফাইজলামি ও ভাবগাম্ভীর্য নিয়ে কুতর্ক উইথ ফরহাদ মজহার, সাল ২০১৪ টু ২০১৮

“ভাষায় ফাইজলামি খারাপ না, কিন্তু ব্যক্তিতান্ত্রিক বিকার থেকে বাংলা সাহিত্যকে মুক্ত করা গুরুত্বপূর্ণ একটা কাজ।”—ফরহাদ মজহার

রাজীবের দুই ভাই ও অনন্ত জলিলের দায়িত্ব লওয়ার বিজ্ঞাপন

এতিম বাচ্চারা সমাজ ও রাষ্ট্রের জিম্মায় থাকে। আপনি তাদের মধ্যে যখন বেটার এতিম বাছাই করতে যান সেইটা আপনার, আপনাদের দুই নম্বরী।

বাংলা সাহিত্যে ‘মুসলমান-বিদ্বেষ’ বিষয়ে রবীন্দ্রনাথের ওকালতি

রবীন্দ্রনাথের সমস্যা হইল ভদ্রলোক বিদ্বেষ করতে দিবেন, কিন্তু বিদ্বেষের সমালোচনা করতে দিবেন না।

« Older posts

© 2020 কুতর্কের দোকান — Powered by WordPress

Theme by Anders NorenUp ↑